» রাহুল গান্ধীকে তিন দিনে ৩০ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ

প্রকাশিত: ১৬. জুন. ২০২২ | বৃহস্পতিবার

জাতির সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম।। ন্যাশনাল হেরাল্ড মামলায় ভারতের কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধীকে তিন দিন ধরে দফায় দফায় প্রায় ৩০ ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করেও খুশি নয় এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)। এক দিনের বিরতি দিয়ে চতুর্থ দফায় তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থাটির পক্ষ থেকে তলব করা হয়েছে।

জানা গেছে, রাহুলকে ফের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য শুক্রবার দিল্লির এপিজে আব্দুল কালাম রোডে ইডির সদর দপ্তরে হাজিরা দিতে বলা হয়েছে। বুধবার দু দফায় প্রায় সাড়ে নয় ঘণ্টা জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় সাবেক কংগ্রেস সভাপতিকে। বলো সাড়ে ১১টা থেকে প্রায় রাত সাড়ে ৯টা পর্যন্ত চলে জিজ্ঞাসাবাদ।

যদিও ইডির একটি সূত্রের দাবি জিজ্ঞাসাবাদ নয়, বেশি সময়টাই চলে যাচ্ছে রাহুলের আগের দেওয়া বয়ান সংশোধনে। ওই সূত্রের দাবি, রাহুলের আগের যে বয়ান লিপিবদ্ধ করা হয়েছিল, তার সঙ্গে বর্তমান বয়ানের অসঙ্গতি ধরা পড়েছে।

নরেন্দ্র মোদী সরকারের আমলে সাত বছর আগে এই ন্যাশনাল হেরাল্ড-কাণ্ডেই সোনিয়া গান্ধী ও রাহুলকে ক্লিনচিট দিয়ে মামলা বন্ধের সুপারিশ করেছিল ‘এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)’।

সংস্থার তৎকালীন যুগ্ম-উপ পরিচালক রাজন কাটোচ অর্থ মন্ত্রণালয়ে পাঠানো রিপোর্টে স্পষ্ট ভাষায় জানিয়েছিলেন, কংগ্রেসের দুই শীর্ষনেতার বিরুদ্ধে সব অভিযোগই ভিত্তিহীন। কিন্তু সেই মামলাতেই চতুর্থ বার রাহুলকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করা হলো। কংগ্রেসের পাশাপাশি একাধিক বিরোধী দলের পক্ষ থেকে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার দাবি তোলা হয়েছে।

এদিকে মঙ্গলবার দফায় দফায় ৮ ঘণ্টা ধরে জিজ্ঞাসাবাদের পরও সাবেক কংগ্রেস সভাপতির কাছ থেকে ‘সন্তোষজনক জবাব’ মেলেনি বলে ইডির একটি সূত্রে জানানো হয়েছে। তাই তাকে ফের বুধবার ডাকা হয়। বিকেল সাড়ে ৩টা থেকে সাড়ে ৪টা পর্যন্ত বিরতির পর রাত প্রায় ৯টা পর্যন্ত চলে জিজ্ঞাসাবাদ। এর আগে সোমবার দু’দফায় নয় ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছিল রাহুলকে।