এই মাত্র পাওয়া:

» রাজধানীর পল্লবী থানা কম্পাউন্ডের ভেতরে বোমা বিস্ফোরণ, পুলিশসহ আহত ৫

প্রকাশিত: ২৯. জুলাই. ২০২০ | বুধবার

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

 

জাতির সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম ।। রাজধানীর পল্লবী থানা কম্পাউন্ডের ভেতরে একটি বোমা বিস্ফোরিত হয়েছে। এ ঘটনায় চার পুলিশসহ পাঁচজন আহত হয়েছেন। তাদের উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।

আজ বুধবার ভোরে এই ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে ডিএমপির বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিটের সদস্যরা ঘটনাস্থলে ছুটে যান। পুলিশের দায়িত্বশীল একটি সূত্র এ তথ্য জানিয়েছে।

বিস্ফোরণে আহতরা হলেন—পল্লবী থানার ওসি তদন্ত পুলিশ পরিদর্শক ইমরান (৪৮), এসআই সজীব (৩০), পিএসআই অঙ্কুশ (২৮), পিএসআই রুমির (২৮) আহত হয়েছেন। এছাড়া রিয়াজ (২৮) নামে একজন আহত হয়েছেন।

বর্তমানে রুমি ও রিয়াজ জরুরি বিভাগে চিকিৎসাধীন আছেন। পিএসআই অঙ্কুশ চক্ষু হাসপাতালে আছেন। ওসি তদন্ত ইমরান ও এসআই সজীব প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে চলে গেছেন।

পুলিশের একজন কর্মকর্তা জানান, রাতে থানা কম্পাউন্ডের ভেতরে পরিত্যক্ত অবস্থায় একটি বোমা দেখতে পেয়ে তারা বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিটকে খবর দেন। বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট ঘটনাস্থলে যাওয়ার আগেই বোমাটি বিস্ফোরিত হয়। এতে চারজন পুলিশ সদস্য ও একজন সাধারণ নাগরিক আহত হন। তাদের উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। এর মধ্যে দু’জনকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। একজনকে চক্ষু হাসপাতালে স্থানান্তর ও দু’জনকে ভর্তি রাখা হয়েছে।’

তবে অপর একটি সূত্র জানিয়েছে, একটি আগ্নেয়াস্ত্র ও চারটি ককটেলসহ একজন সন্ত্রাসীকে আটক করে থানায় আনা হয়েছিল। ওই সন্ত্রাসীর সঙ্গে থাকা ককটেলগুলো ডিফিউজ করতে বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিটকে কল করা হয়। ককটেল ডিফিউজ করতে গিয়ে বিস্ফোরিত হয়ে পাঁচজন আহত হয়েছে।

ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার (মিডিয়া) ওয়ালিদ হোসেন বলেন, ‘পল্লবী থানা পুলিশ দুটি আগ্নেয়াস্ত্রসহ তিনজন সন্ত্রাসীকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। সন্ত্রাসীদের কাছে ওজন মাপার মেশিনের মতো একটা যন্ত্র ছিল। ওই যন্ত্রটি ডিউটি অফিসারের কক্ষে রাখা হলে তা বিস্ফোরিত হয়।’

তিনি জানান, আটক হওয়া সন্ত্রাসীরা ভাড়াটে খুনি। পুলিশের কাছে তথ্য ছিল তারা পল্লবীর স্থানীয় একজন রাজনৈতিক নেতাকে হত্যা করবে। বিষয়টি তদন্ত করা হচ্ছে। তদন্তের পর বিষয়গুলো পরিষ্কার হবে।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি জঙ্গি হামলার আশঙ্কায় দেশজুড়ে পুলিশ সদর দপ্তরের পক্ষ থেকে সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে। এতে পুলিশকে টার্গেট করে পুলিশ সদস্যদের ওপর বা পুলিশের স্থাপনায় হামলা হতে বলে আশঙ্কা করা হয়েছে। এর মধ্যেই গত শুক্রবার পল্টনে একটি বোমা বিস্ফোরিত হয়েছে। একদিন পর একই এলাকা থেকে একটি বোমা সাদৃশ বস্তু উদ্ধার করা হয়। এর চার দিনের মাথায় থানা কম্পাউন্ডের ভেতরে বোমা বিস্ফোরিত হলো।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৬৬ বার

[hupso]
Facebook Pagelike Widget