» দ্বিতীয় ইনিংসে ৫ উইকেট হারিয়ে দিন শেষ করল বাংলাদেশ

প্রকাশিত: ০২. মে. ২০২১ | রবিবার

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

জাতির সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম।।
শ্রীলঙ্কা দেওয়া ৪৩৭ রানের পাহাড় সমান লক্ষ্য মোকাবিলায় দ্বিতীয় ইনিংসে ৫ উইকেট হারিয়ে দিন শেষ করল বাংলাদেশ। আলোক স্বল্পতার কারণে পাঁচ ব্যাটসম্যানকে হারিয়ে ১৭৭ রানে চতুর্থ দিন শেষ করে টাইগাররা। এখনো ২৬০ রান পিছিয়ে আছে টাইগাররা।

শুরুটা আশা জাগানোর মতো হয়েছিল চলমান টেস্টে বাংলাদেশের আগ্রাসী ব্যাটসম্যান তামিম ইকবালের। চার মেরে রানের খাতা খুললেও এ দিন ইনিংস বেশিদূর নিতে পারেননি তিনি। উইকেটে থিতু হওয়ার আগেই রামিশ মেন্ডিসের শিকার হন এই ওপেনার।

আজ রোবাবর পাল্লেকেলেতে সিরিজের শেষ টেস্টের চতুর্থ দিনে ব্যাট করতে এসে ওভার প্রতি পাঁচের ওপর ধরে রেখে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৯৪ রান করে স্বাগতিকরা। এরপরই দুই ইনিংস মিলিয়ে ৪৩৬ রানে লিড ঘোষণা করে লঙ্কান অধিনায়ক দিমুথ করুণারত্নে।

নিজেদের টেস্ট ক্রিকেট ইতিহাসে এত রান তাড়া করে কখনোই জেতার নজির নেই টাইগারদের। এর আগে ২১৫ রানের বেশি তাড়া করেও জিততে পারেনি লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। দেশের বাইরে চতুর্থ ইনিংসে তাদের সংগ্রহ সর্বোচ্চ ২৮২। যে কারণে স্পিন উইকেটে কামড়ে ধরে টিকে না থাকতে পারলে এই ম্যাচে হারতে হবে টাইগারদের।

বড় লক্ষ্য তাড়া করতে এসে শুরুটা ভালোই হয়েছিল। তবে তা বেশিক্ষণ স্থায়ী হয়নি। মাত্র ৩১ রানের মাথায় তামিম ইকবালকে সাজঘরে ফিরিয়ে ব্রেকথ্রো এনে দেন রামিশ মেন্ডিস। এর আগে, দুবার ৯০ এর ঘরে আউট হওয়া ছাড়া এক ইনিংসে ৭২ রানে অপরাজিত তামিম। এবার করলেন মাত্র ২৪।

তামিমের বিদায়ে দলের হাল ধরেন ওপেনার সাইফ হাসান ও নতুন ব্যাটসম্যান নাজমুল হোসেন শান্ত। দুজনের জুটি ভালোই সম্ভাবনা জাগিয়েছিল। কিন্তু ৪২ রানের জুটি গড়ে প্রবীন জয়াবিক্রমার শিকার হন সাইফ। ৩৪ রান করে এই ওপেনারের সাজঘরে ফেরার সময় ভাঙে এই জুটি। এরপর থিতু হয়েও টিকতে পারেননি শান্ত। ১০৪ রানের মাথায় জয়াবিক্রমার বলে বোল্ড হন তিনি। আগের টেস্টে সেঞ্চুরি করলেও এই টেস্টে তেমন ছাপ রাখতে পারেননি এই ব্যাটসম্যান।

তৃতীয় সেশনে এসে মেন্ডিসের শিকার হয়ে সাজঘরে ফেরেন অধিনায়ক মুমিনুল হকও। ইনিংস বড় করার আশা জাগিয়েও ৩২ রানে থামেন তিনি। পঞ্চম উইকেটের জুটিতে ৪০ রান করা মুশফিকুর রহিমকেও প্যাভিলিয়নে ফেরান এই স্পিনার।

Facebook Pagelike Widget